ক্রিকেট
এখন মাঠে

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের এবার আতংকের নাম বৃষ্টি

অঘটনের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের শুরু থেকেই দেখা যাচ্ছে চমক। পাকিস্তান, ইংল্যান্ড, নিউজিল্যান্ডের মতো দলের ভাগ্য দুলছে পেন্ডুলামের মতো করে। আর সেখানে সবচেয়ে বড় আতংকের নাম বৃষ্টি। কি রয়েছে এই দলগুলোর ভাগ্যে?

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের অন্যতম সফল দল ইংল্যান্ড। যুগ্মভাবে সর্বোচ্চ দু'বারের চ্যাম্পিয়ন তো বটে, ফাইনালও খেলেছে তিনবার। ইংলিশদের মতো সর্বোচ্চ তিনবারের ফাইনালিস্ট পাকিস্তানও। শোকেসেও আছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ।

তবে এবারের বিশ্বকাপ সাবেক বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের মিলিয়ে দিয়েছে এক বিন্দুতে। গ্রুপ পর্ব শেষ হওয়ার আগেই শঙ্কা জেগেছে সুপার এইটে যেতে পারবে তো বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন এই দুই দল?

সমীকরণ এখন এমন যে, পা ফসকালেই একেবারে গভীর খাদে পড়ে যেতে হবে তাদের। অর্থাৎ বিদায়। তাই এখন 'ভাগ্যের' ওপর নির্ভর করতে হচ্ছে এই দুই দলকে। শুরু থেকে অঘটনের যে পূর্বাভাস পাওয়া গিয়েছিল, সেটিই যেন এখন একের পর এক ঘটতে শুরু করেছে।

ডালাসে সুপার ওভারে স্বাগতিক যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে হারের পর রোববার নিউ ইয়র্কে ভারতের কাছে লো স্কোরিং ম্যাচে জয়ের আশা জাগিয়েও অসহায় আত্মসমর্পণ করেছে পাকিস্তান। রোহিত শর্মারা যদি পরের ম্যাচে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডাকে হারিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়, তবে লাভ পাকিস্তানের।

কানাডাকে হারিয়ে প্রথম ধাপ পারি দিয়েছে পাকিস্তান। ১৬ই জুন হারাতে হবে আয়ারল্যান্ডকেও। আর হার কামনা করতে হবে যুক্তরাষ্ট্রের।

অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে সংকটে পড়ে গেছে সাবেক চ্যাম্পিয়ন ইংল্যান্ড। গত ওয়ানডে বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হিসেবে এসে নকআউট পর্বে যেতে পারেনি ইংল্যান্ড। এবার কি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও একই ভাগ্য বরণ করতে হবে তাদের?

'বি' গ্রুপ থেকে পরের রাউন্ডে যেতে হলে ওমান ও নামিবিয়াকে হারাতেই হবে তাদের। বড় জয়ে বাড়িয়ে নিতে হবে নেট রানরেট। কামনা করতে হবে স্কটিশদের বিপক্ষে অজিদের জয়। তবে সব সমীকরণ পালটে দিতে পারে বৃষ্টি। আর একটি ম্যাচ পরিত্যাক্ত হলেই খালি হাতেই ঘরে ফিরতে হবে লায়ন্সদের।

আফগানিস্তানের বিপক্ষে হেরে কঠিন সমীকরণের সামনে পড়ে গেছে নিউজিল্যান্ডও। সেই কিউইরা যদি বৃহস্পতিবার সকালে স্বাগতিক ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হেরে বসে, তবে তাদের কপালেও রয়েছে শনির দশা। বাকি দুই ম্যাচে আফগানরা ক্যারিবীয়দের কাছে যদি হারে আর পাপুয়া নিউগিনিকে হারায়, তবে কোনো আশাই থাকবে না কেন উইলিয়ামসনদের।

বৃষ্টির বাধায় ইতোমধ্যেই ঘরে ফেরার টিকিট নিশ্চিত করেছে শ্রীলঙ্কা। 'ডি' গ্রুপে প্রথম দুই ম্যাচে হেরেছে বাংলাদেশ ও দক্ষিণ আফ্রিকার কাছে। আর তৃতীয় ম্যাচে নেপালের সাথে পয়েন্ট ভাগাভাগি হয়েছে বৃষ্টির কারণে। তাই নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে জিতলেও কার্যত সুপার এইটে যাবার কোন আশা নেই লঙ্কানদের।

তবে এত সব সমীকরণ ভেস্তে দিতে পারে বৃষ্টি। যুক্তরাষ্ট্রে যেভাবে বৃষ্টির আনাগোনা, কোনো কারণে একটি ম্যাচ পরিত্যক্ত হলেই শ্রীলংকার ভাগ্যবরণ করে নিতে হবে অন্য দলগুলোকে।

ইএ

এই সম্পর্কিত অন্যান্য খবর