ক্রিকেট
এখন মাঠে
আইপিএলে কোহলির ধীরগতির সেঞ্চুরির রেকর্ড
আইপিএলে ধীরগতির সেঞ্চুরির রেকর্ড করার পর পুরনো প্রশ্নটা আবারো মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে, 'টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে থাকছেন তো বিরাট কোহলি?' সমর্থকদের মধ্যে এ নিয়ে রয়েছে মিশ্র প্রতিক্রিয়া। যদিও সাবেক ক্রিকেটারদেরকে পাশে পাচ্ছেন ভারতীয় কিংবদন্তি।

রাজস্থান রয়্যালস বনাম রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু ম্যাচে সেঞ্চুরি হয়েছে দু'টি। একটি বিরাট কোহলির অন্যটি জশ বাটলারের। বিজয়ীর তালিকায় নাম বাটলারের, কোহলি পরাজিতদের দলে। হিসাবটা খুব সহজ, কোহলির সেঞ্চুরিটা এসেছে ৬৭ বলে আর বাটলার সেঞ্চুরি করেছেন ৫৮ বলে। দু'জনের কয়েকটা বলের ব্যবধানই ম্যাচের ফলাফল নির্ধারণ করে দিয়েছে।

৬৭ বলের সেঞ্চুরি করে কোহলি নিজের নাম উঠিয়েছেন একটা অস্বস্তিকর রেকর্ডে। আইপিএল ইতিহাসের সবচেয়ে মন্থরগতির রেকর্ডে তার নামটা যৌথভাবে এখন সবার উপরে। এমন কীর্তির পর আবারো ঘুরেফিরে আসছে মাসকয়েক আগের পুরনো প্রশ্ন, আধুনিক টি-টোয়েন্টিতে কতটুকু মানানসই বিরাট কোহলি? আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দলে কি তাকে রাখা যৌক্তিক হবে?

ভারতের ক্রিকেট ইতিহাসের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যানকে নিয়ে এমন প্রশ্ন ওঠা বিস্ময়কর ব্যাপারই বটে। প্রায় সব ফরম্যাটে সমান দক্ষতায় ব্যাট চালানো কোহলিকে নিয়ে তাহলে এমন প্রশ্নের সূচনা কিভাবে?

ঘটনা গেল মাসের, ইংলিশ গণমাধ্যম দ্য টেলিগ্রাফ দাবি করে, বিরাট কোহলিকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলাতে চান না ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের নীতিনির্ধারকদের একটি অংশ। এমনকি নির্বাচকরাও নাকি তার ব্যাটিংয়ের ধাঁচে সন্তুষ্ট নন। সে প্রতিবেদনের পর অবশ্য সব মহলে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। দেশটির সমর্থক থেকে শুরু করে সাবেক ক্রিকেটারদের অনেকেও কোহলিকে বাদ দিয়ে ব্যাটে ঝড় তুলতে পারেন এমন কাউকে দলে চেয়ে বসেন। এ নিয়ে চলমান তর্কের মাঝেই অধিনায়ক রোহিত শর্মার সঙ্গে বৈঠকে বসে বিসিসিআই। জানতে চাওয়া হয় তার মতামত, রোহিত সরাসরিই জানিয়ে দেন, কোহলিকে ছাড়া বিশ্বকাপে যেতে চান না তিনি।

চলমান আইপিএলে দারুণ ফর্মে থাকায় সাবেকদের বড় একটা অংশ সমর্থন দিয়ে যাচ্ছেন কোহলিকে। এখন পর্যন্ত আসরে খেলা ৫ ম্যাচে ১ সেঞ্চুরি আর ২ ফিফটিতে ৩১৬ রান সংগ্রহ করেছেন তিনি। স্ট্রাইক রেটও ১৪৬ এর বেশি। তারপরও ধীরগতির সেঞ্চুরির রেকর্ডে আবারো নেটিজেনদের প্রশ্ন, কোহলি কি আসলেই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে যাচ্ছেন? আবার সাবেক পাকিস্তানি ব্যাটার আহমেদ শেহজাদ অবাক হয়ে প্রশ্ন ছুঁড়েছেন কিভাবে কোহলিকে বাদ দেওয়ার কথা ভাবা যায়? বুঝে-শুনে সিদ্ধান্ত নেয়ার জন্য ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

সব প্রশ্ন কিংবা ধোঁয়াশা কাটবে এ মাসেই। এপ্রিলের শেষদিকে বিশ্বকাপের দল ঘোষণা করবে বিসিসিআই।

ইএ