ক্রিকেট
এখন মাঠে
পারফরম্যান্স না করেও জাতীয় দলে সৌম্য সরকার
সৌম্য সরকার। তার প্রতিভার নিয়ে সন্দেহ নেই। কিন্তু, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে টিকে থাকতে হলে দলের হয়ে পারফরম্যান্সের বিকল্প নেই।

২০১৪ সালে বাংলাদেশের হয়ে অভিষেকের পর কখনই তিন ফরম্যাটে লম্বা সময়ে ধারাবাহিক ছিলেন না সৌম্য সরকার। তার দল থেকে বাদ পড়া আবারও দলে সুযোগ পাওয়া। এমন অনেক ঘটনাই ঘটেছে। কিন্তু, ২০১৮ সাল থেকে বাদ পড়ে আবার সুযোগ পাওয়া নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন।

নিউজিল্যান্ড সফরে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি দুই ফরম্যাটেই সুযোগ পেয়েছেন সৌম্য। কিন্তু, জাতীয় লিগে আহামরি এমন কিছুই করেননি। এছাড়াও, বিশ্বকাপের আগে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে দুই ওয়ানডেতে হয়েছেন চরম ব্যর্থ। গুঞ্জন আছে কোচ হাথুরুসিংহের পছন্দের পাত্র হওয়ায় আবারও সৌম্যকে ভেড়ানো হয়েছে জাতীয় দলে। এমন প্রশ্নে সাফাই গাইলেন বিসিবি'র নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন।

বাংলাদেশে লেফট আর্ম স্পিনারের খনি আছে। কিন্তু, যুগের পর যুগ পেরিয়ে গেলেও, নির্বাচকরা খুঁজে বের করতে পারেননি ভালোমানের একজন রিস্ট স্পিনার। এই অভাব দেশের ক্রিকেটে মিটছেই না। রিশাব হাসানকে এর আগে জাতীয় দলে ডাকলেও, খেলানো হয়নি। নিউজিল্যান্ড সফরে দুই ফরম্যাটে রাখা হয়েছে। তবে, একাদশে রাখা হবে তো?

হাবিবুল বাশার সুমন বলেন, বাংলাদেশে যত লেগ স্পিনার আছে তার মধ্যে সবচেয়ে রিশাদ ভালো।

সমান তিন ম্যাচের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলতে ১২ ডিসেম্বর নিউজিল্যান্ড উড়াল দেবে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। ১৭ ডিসেম্বর ডানেডিনে প্রথম ওয়ানডেতে মুখোমুখি হবে দু'দল।

এমএসএ
আরও পড়ুন: