শিল্প-কারখানা
অর্থনীতি

বাংলাদেশে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্প্রসারণে আগ্রহী কানাডা

কানাডার ইন্দো-প্যাসিফিক বাণিজ্য প্রতিনিধি পল জে থপ্পিল বাংলাদেশের সঙ্গে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্প্রসারণে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। আজ (রোববার, ১৯ মে) শিল্প মন্ত্রণালয়ে শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূনের সঙ্গে সাক্ষাৎকালে এই আগ্রহ প্রকাশ করেন তিনি।

এদিকে কানাডার প্রতিনিধিদলকে স্বাগত জানিয়ে মন্ত্রী মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগিতার আশ্বাস প্রদান করেছেন।

শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন বলেন, ‘বাংলাদেশ বিশ্বের অন্যতম দ্রুত বর্ধনশীল অর্থনীতির দেশ, যা কানাডাসহ বৃহৎ ও উন্নত দেশগুলোকে আকর্ষণ করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দক্ষ, বলিষ্ঠ ও দূরদর্শী নেতৃত্বের কারণে এ অর্জন সম্ভব হয়েছে। বাংলাদেশে চীন, জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া, ভারতসহ অনেক দেশ বৃহৎ আকারে বিনিয়োগ করছে।’

মন্ত্রী আরও বলেন, বাংলাদেশে রাজনৈতিক স্থিতিশীলতাসহ বিনিয়োগবান্ধব পরিবেশ রয়েছে। পাশাপাশি কম মজুরিতে দক্ষ শ্রমিক এবং প্রয়োজনীয় অবকাঠামো পাওয়া যায়। বর্তমান সরকার যোগাযোগ নেটওয়ার্ক বৃদ্ধিসহ অবকাঠামো উন্নয়নে মনোনিবেশ করেছে। ইতোমধ্যে আমরা পদ্মা সেতু, ঢাকা মেট্রোরেল, কর্ণফুলী টানেল, ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে, বিমানবন্দরের তৃতীয় টার্মিনালসহ বেশ কয়েকটি বড় উন্নয়ন প্রকল্প সাফল্যের সঙ্গে বাস্তবায়ন করেছি। এছাড়া মাতারবাড়ী গভীর সমুদ্রবন্দর, বঙ্গবন্ধু রেলওয়ে সেতু ও রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রসহ বেশ কয়েকটি বড় প্রকল্প বাস্তবায়নের পথে রয়েছে। এসব বিবেচনায় বাংলাদেশ দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে সবচেয়ে আকর্ষণীয় বিনিয়োগ গন্তব্য বলে পরিচিত।

এসময় শিল্পমন্ত্রী বলেন, আমরা কানাডা থেকে ভালো মানের বড় বিনিয়োগ চাই। আমরা কানাডার অভিজ্ঞতা ও জ্ঞান শিল্পখাতের সার্বিক উন্নয়নে কাজে লাগাতে চাই।

পল জে থপ্পিল বলেন, আমরা সুদূরপ্রসারী লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যকে সামনে রেখে বাংলাদেশে বড় আকারে বিনিয়োগে আগ্রহী। এর মাধ্যমে দুই দেশের মধ্যে বাণিজ্যিক সম্পর্ক জোরদারসহ উভয়পক্ষ লাভবান হবে।

সাক্ষাৎকালে শিল্প মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব জাকিয়া সুলতানা, বাংলাদেশে নিযুক্ত কানাডার হাইকমিশনার লিলি নিকলস, শিল্প মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব নিলুফার নাজনীন, এস এম আলম ও কামরুন নাহার সিদ্দীকা উপস্থিত ছিলেন।

এই সম্পর্কিত অন্যান্য খবর