ছাড়
বাজার
ক্রেতার আগ্রহের কেন্দ্রে দেশীয় ব্র্যান্ড ওয়ালটন
এবার গরমে ঈদুল ফিতর হওয়ায় দিনাজপুরে রেফ্রিজারেটরের চাহিদা বেড়েছে। এছাড়া গৃহস্থালীর নানা কাজে ইলেকট্রনিক্স পণ্য কিনতে ভিড় করছেন ক্রেতারা। তবে এবার ঈদে চাহিদার পালে হাওয়া লাগিয়েছে ওয়ালটনের মিলিয়নিয়ার অফার।

চৈত্রের তপ্ত রোদে সিয়াম সাধনার বাস্তবতায় গৃহস্থালির নানা কাজে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত যন্ত্র, ফ্রিজসহ বিভিন্ন ইলেকট্রনিক্স পণ্যের প্রয়োজন পড়ছে। এজন্য ঈদের বেশ আগেভাগেই বাহারি পণ্যের পসরা সাজিয়ে ক্রেতা আকর্ষণের চেষ্টা ইলেকট্রনিক্স শোরুমগুলোতে।

একদিকে বাজারে যেমন বাহারি ব্র্যান্ডের ইলেক্ট্রনিক্স সামগ্রীর কমতি নেই তেমন ক্রেতাদের চাহিদা থাকে স্বল্পমূল্যে ভালো মানের পণ্য সংগ্রহ করা। এমন প্রয়োজন ও আগ্রহের বিবেচনায় এগিয়ে দেশীয় ব্র্যান্ড ওয়ালটন।

ক্রেতারা বলেন, ‘ওয়ালটন দেশীয় পণ্যের দিক দিয়ে অনেক ভালো। আর বিদেশি পণ্যের চেয়েও অনেক ভালো।’

ঈদ ঘিরে মিলিয়নিয়ার অফারে টিভি, ফ্রিজ, ওয়াশিং মেশিন, ব্লেন্ডার, ওভেন, এসি, রাইস কুকার কিংবা টিভিসহ নানা পণ্য কিনলে ভাগ্য খুলতে পারে গ্রাহকের। দিনাজপুরের শোরুমে এখন পর্যন্ত রিটেইলার সেন্টার ও ওয়ালটন প্লাজাগুলোয় ক্রেতাদের প্রথম চাহিদা রেফ্রিজারেটর। ন্যূনতম ২৭ হাজার টাকা থেকে মোটামুটি মানের রেফ্রিজারেটর কিনতে পারছেন ক্রেতারা। আর স্মার্ট ও এন্ড্রয়েড টিভিরও চাহিদা বেশি।

ওয়ালটনের বিক্রয় ও তদারকির জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা মো. মেহবুব রহমান বলেন, ‘আমাদের হট সেল অফার চলছে। সঙ্গে এক্সচেঞ্জ অফারও  আছে।’

বিলাসিতার বার্তা পেছনে ফেলে এসি যেন এখন স্বচ্ছল পরিবারের প্রয়োজনীয় অনুষঙ্গ হয়ে উঠেছে। এখানেও ক্রেতাদের আগ্রহের কেন্দ্রে ওয়ালটন।

গেল বছর ওয়ালটনের মিলিয়নিয়ার অফার দেশজুড়ে সাড়া ফেলায় এবারও ক্রেতা আকর্ষণের কমতি নেই কোম্পানিটির। ফলে গতবারের চেয়ে এবার অধিক বেচাকানার প্রত্যাশা করছেন ব্যবসায়ীরা।

দিনাজপুরের আমতলীর লাবিব ইলেকট্রনিক্সের ব্যাবস্থাপক রাশেদুল ইসলাম মানিক বলেন, ‘রোজার ঈদে একটু সাড়া কম থাকলেও কুরবানির  ঈদে আরও সাড়া পাওয়া যাবে। বিশেষ করে, ওয়ালটনের ফ্রিজ বেশি বিক্রি হচ্ছে।’

বিশ্ববাজারে ৪০টিরও বেশি দেশে সুনামের সঙ্গে ইলেকট্রনিক্স পণ্য রপ্তানি করছে ওয়ালটন। এবার ওয়ালটনের মিলিয়নিয়ার অফারে ক্রেতারা বেশ খুশি। গত ১ মার্চ থেকে শুরু হওয়া মিলিয়নিয়ার অফারটি পরবর্তী ঘোষণা না দেওয়া পর্যন্ত চলবে।

ইএ