দেশে এখন

ঐতিহাসিক তিয়েনআনমেন স্কয়ারে প্রধানমন্ত্রীর ফুলেল শ্রদ্ধা

চীনের ঐতিহাসিক তিয়েনআনমেন স্কয়ারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ (মঙ্গলবার, ৯ জুলাই) বিকেলে সরকারপ্রধান এ শ্রদ্ধা জানান হয়।

তিয়েনআনমেন চত্বর চীনের সর্ববৃহৎ চত্বর। এটি বেইজিং শহরের মধ্যস্থলে অবস্থিত। এখানে রয়েছে তিয়েনআনমেন গেট বা স্বর্গীয় শান্তির তোরণ- যা চত্বরের উত্তর পার্শ্বে অবস্থিত। এটি বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম চত্বর। এ চত্বরটি চীনের ইতিহাসের বহু গুরুত্বপূর্ণ ঘটনার পীঠস্থান।

আজ বিকেলে প্রধানমন্ত্রী এই ঐতিহাসিক স্কয়ারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানালেন। তার সঙ্গে ছিলেন সফরসঙ্গীরা।

এর আগে চীনা কনজারভেটিভ পার্টির প্রেসিডেন্ট ওয়াংয়ের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন প্রধানমন্ত্রী।

এদিন সকালে প্রধানমন্ত্রীর উপস্থিতিতে বাংলাদেশ ও চীনের মধ্যে ব্যবসায়িক পর্যায়ে ১৬টি সমঝোতা স্মারক সই হয়েছে। এর মধ্যে অন্যতম ১৮ মিলিয়ন ডলারের এলএনজি খাতে বিনিয়োগে সমঝোতা স্মারক। এছাড়া জ্বালানি, প্রযুক্তি ও আর্থিকখাতে বেশ কয়েকটি সমঝোতাও সই হয়েছে।

চার দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে গতকাল (৮ জুলাই) চীনের রাজধানী বেইজিংয়ে সফরে যান প্রধানমন্ত্রী। সফরের কর্মসূচি হিসেবে আগামীকাল প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের সঙ্গে বৈঠক করবেন শেখ হাসিনা। একই দিন চীনের পার্লামেন্ট ন্যাশনাল পিপলস কংগ্রেস অব চায়নার প্রেসিডেন্ট ঝাও লেজির সঙ্গেও বৈঠক করার কথা রয়েছে।

এমএসআরএস

এই সম্পর্কিত অন্যান্য খবর