ইউরোপ
বিদেশে এখন
ইউক্রেনের প্রতি ইউরোপবাসীর ভরসা কমেছে
মাত্র ১০ শতাংশ ইউরোপীয়ানদের বিশ্বাস ইউক্রেন যুদ্ধে জয়ী হবে। যদিও রাশিয়ার বিজয় ঠেকাতে মরিয়া ইউরোপের বেশিরভাগ বাসিন্দা। তবে ইউক্রেনের প্রতি তাদের ভরসা দিন দিন কমছে।

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের দুই বছরেও সমাধান আসেনি। যুদ্ধে ইউক্রেনের পাশে দাঁড়িয়েছে ইউরোপসহ পশ্চিমা বিশ্বের অনেক দেশ। অন্যদিকে অনেকটা একাই লড়ে যাচ্ছে পুতিনের রাশিয়া। অর্থনৈতিক বা বাণিজ্যিক অবরোধেও কাবু হননি পুতিন। যুদ্ধের কৌশল পাল্টে ইউক্রেনের একের পর এক ভূখণ্ড দখল করছে রাশিয়া।

অন্যদিকে যুদ্ধ চালাতে গিয়ে ফুরিয়ে আসছে ইউক্রেনের ভান্ডার। অস্ত্র ও সামরিক শক্তির জন্য দেশটি চেয়ে আছে যুক্তরাষ্ট্রসহ তার মিত্রদের দিকে।

ইউরোপিয়ান কাউন্সিল অন ফরেন রিলেশনসের এক জনমত জরিপ অনুযায়ী, বেশিরভাগ ইউরোপিয়ান রাশিয়ার বিজয় দেখতে চায় না। আবার ইউক্রেনের জয়ের ব্যাপারেও তারা সন্দিহান। ১২টি ইউরোপীয় দেশের প্রতি ১০ জনের একজন ইউক্রেনের ব্যাপারে আশাবাদী।

অন্যদিকে রাশিয়া জয় পাবে বলে মনে করেন ২০ শতাংশ মানুষ। তবে ইউক্রেনের জন্য সহায়তা অব্যাহত রাখার ব্যাপারে একমত সবাই।

জরিপের ফলে দেখা যায়, ইউরোপের ৩৩ শতাংশ জনগণ মনে করেন, যুদ্ধে তাদের দেশে ও পুরো ইউরোপে ব্যাপক নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে। যা মধ্যপ্রাচ্যের চলমান যুদ্ধের চেয়ে বেশি।

পশ্চিমা নীতিনির্ধারকদের মতে, ইউক্রেনের প্রতি সাধারণ মানুষের সমর্থন বাড়াতে ইউরোপীয় নেতাদের নতুন পথ খুঁজতে হবে। রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে, ইউক্রেন তার ভূখণ্ড হারালে পুরো ইউরোপের নিরাপত্তা হুমকির মুখে পড়তে পারে।

এদিকে জরিপে অংশগ্রহণকারী ৩৭ শতাংশ ইউরোপবাসী চান, টেকসই আলোচনার মাধ্যমে শান্তিপূর্ণ সমঝোতায় আসুক রাশিয়া ও ইউক্রেন।

এমএসআরএস